ব্রাজিল থেকে আসা মুরগিতেও করোনা প্রমাণিত : চীন

ব্রাজিল থেকে আসা মুরগিতেও করোনা প্রমাণিত : চীন
Spread the love

করোনাভাইরাসের কারণে যেন সারা বিশ্ব থমকে গেছে। সারা পৃথিবী করোনা প্রতিরোধক ভ্যাকসিন পাওয়ার জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করে যাচ্ছে। সময় সময় করোনাভাইরাস যেন নতুন নতুন মোড় নিচ্ছে।

করোনা বাহক এত দিন ধরা হয়েছিল এটা মানবদেহ থেকে ছড়ায়। তবে নতুন খবর হলো এবার মুরগির মাংসেও করোনার উপসর্গ পাওয়া গেছে। চীন দাবি করছে ব্রাজিল থেকে আসা মুরগির মাংসে করোনার উপসর্গ পেয়েছে চীনা বিশেষজ্ঞরা।

ব্রাজিল থেকে চীনের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর শেনজেনে আমদানি করা হিমায়িত মুরগির পাখার নমুনায় করোনা শনাক্ত হয়েছে। বৃহস্পতিবার এক বিজ্ঞপ্তিতে শহর কতৃপক্ষ এমন তথ্য জানিয়েছে।

চীন গত জুন থেকে আমদানিকৃত গোশত ও সামুদ্রিক খাবারের নিয়মিত পরীক্ষা করা হচ্ছে। তারই অংশ হিসেবে মুরগির পাখা থেকে নমুনা নিয়ে তা পরীক্ষা করে স্থানীয় রোগ নিয়ন্ত্রণ কেন্দ্র।

খবর : রয়টার্স ও এনডিটিভি।

বেইজিংয়ের নতুন মহামারীর সঙ্গে জিংফাদির সামুদ্রিক খাবারের বাজার সম্পর্ক পাওয়া গেছে। সম্ভাব্য দূষিত খাদ্যপণ্যের সংস্পর্শে আসাদের খুঁজে বের করে পরীক্ষা করছে শেনজেনের স্বাস্থ্য কতৃপক্ষ।

সংক্রমিত ব্যাচের কাছাকাছি থাকা খাদ্যপণ্যেরও করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে। তবে সব নমুনা পরীক্ষায় নেগেটিভ এসেছে। মুরগির মাংসে করোনা শনাক্তের খবরটি তারা নিশ্চিত করেছে। তবে এ বিষয়ে জানতে চাইলে বেইজিংয়ে ব্রাজিলের দূতাবাসের কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

শেনজেনের মহামারী সুরক্ষা ও নিয়ন্ত্রণ কার্যালয় জানায়, আমদানি করা গোশত ও সামুদ্রিক খাবার নিয়ে লোকজনকে আরও সর্তক হতে হবে। সংক্রমণ ঝুঁকি এড়াতে সচেতনতা বাড়াতে হবে।

বুধবার চীনের এক প্রতিবেদন বলছে, ইকুয়েডর থেকে আনা প্যাকেটজাত চিংড়িতেও করোনা পাওয়া গেছে।

এছাড়া দূষিত সামুদ্রিক খাবারের বিষয়টিও সামনে চলে এসেছে। খাবারের মধ্যে করোনা শনাক্ত হওয়ায় চীন সহ সারা বিশ্বকেও ভাবিয়ে তুলছে।

admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *